তিনদিনের সরকারি সফরে জার্মানির উদ্দেশে প্রধানমন্ত্রীর ঢাকা ত্যাগ

এওয়ান নিউজ, ঢাকা: মিউনিখ নিরাপত্তা সম্মেলনে যোগ দিতে তিনদিনের সরকারি সফরে জার্মানির উদ্দেশে রওনা হয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আগামী ১৭-১৯ ফেব্রুয়ারি মিউনিখে এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে

প্রধানমন্ত্রী ও তার সফরসঙ্গীরা আবুধাবিভিত্তিক ইতিহাদ এয়ারওয়েজের একটি নিয়মিত ফ্লাইটে বৃহস্পতিবার রাত ১০টা ৫ মিনিটে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর ত্যাগ করেন।

বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ, শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু, বেসরকারি বিমান পরিবহন ও পর্যটনমন্ত্রী রাশেদ খান মেনন, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা এইচটি ইমাম, ইকবাল সোবহান চৌধুরী এবং তিন বাহিনীর প্রধানরা বিমানবন্দরে প্রধানমন্ত্রীকে বিদায় জানান।

এই সফরে প্রধানমন্ত্রীর সফরসঙ্গীদের মধ্যে আছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী, মুখ্য সচিব কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী, পররাষ্ট্র সচিব শহীদুল হক, স্বরাষ্ট্র সচিব কামালউদ্দিন আহমেদ।

জার্মান সময় বিকেল আড়াইটার দিকে মিউনিখ নিরাপত্তা সম্মেলনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যোগ দেবেন প্রধানমন্ত্রী। একই দিন মিউনিখের মেয়র আয়োজিত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানেও যোগ দেওয়ার কথা রয়েছে শেখ হাসিনার।

মিউনিখ নিরাপত্তা সম্মেলনে শনিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি) ‘ক্লাইমেট অ্যান্ড হিউম্যান সিকিউরিটি’ শীর্ষক অধিবেশনে আলোচনায় অংশ নেবেন শেখ হাসিনা। এ অধিবেশনে ফিনল্যান্ডের প্রেসিডেন্ট ও নরওয়ের প্রধানমন্ত্রীর অংশ নেওয়ার কথা রয়েছে।

মিউনিখ সম্মেলনে যোগ দেওয়ার ফাঁকে জার্মান চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যারকেলের সঙ্গে শনিবার দ্বিপক্ষীয় বৈঠক করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

বৈঠকে রোহিঙ্গা ইস্যু, বাণিজ্য, বিনিয়োগ, জলবায়ু পরিবর্তন ও অভিবাসনসহ দ্বিপক্ষীয় বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হবে।

বৈঠক শেষে যৌথ ঘোষণাপত্র স্বাক্ষরিত হতে পারে।

১৯৬৩ সালে মিউনিখ সিকিউরিটি কনফারেন্সের যাত্রা শরু হয়। স্নায়ুযুদ্ধের পটভূমিতে তৈরি হলেও পাঁচ দশকের বেশি সময় ধরে এই সম্মেলন বিশ্ব নিরাপত্তা ও বিভিন্ন পরিবর্তনের প্রেক্ষিত নিয়ে আলোচনা করে থাকে। সময়ের সঙ্গে এটি বর্তমান বিশ্ব নিরাপত্তা আলোচনায় সেরা ‘থিঙ্ক ট্যাঙ্ক কনফারেন্স’ হিসেবে বিবেচিত হচ্ছে।

এবারই প্রথম বাংলাদেশের কোনো রাষ্ট্র বা সরকার প্রধান এই সম্মেলনে যোগ দেওয়ার আমন্ত্রণ পেলেন।

মিউনিখ থেকে শনিবার রাতে দেশের উদ্দেশ্যে রওনা হবেন প্রধানমন্ত্রী। পরদিন রাতে তার ঢাকা ফেরার কথা।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY