প্রত্যাশাগুলো প্রাপ্তিতে ভরে উঠুক: প্রধান বার্তা সম্পাদক


হে নব আলো এসো তুমি প্রাণ বিকাসে,
জনমে জনমে আসিবে স্বপ্ন বিলাসে।
বন্ধু হৃদয়ে গাঁথিয়াছি শত গিতিহার
যত রুপ যত প্রেম দাও তারে উপহার ।
আজন্ম পথপাশে অলস রাগিণী গাহিয়া
অবিষ্ট প্রানে দূর ঐ শশি পানে চাহিয়া ,
পাইয়াছে যে তোমাই সৌধ সাধনে
লয়েছে পুরপরিখারে মত্তা জীবনে
জাগিয়াছ তোমরা জঞ্জাঝড়ে
ভুলনা তারে জরত্তের পরে ।
আজি আমি উম্মক্ত তরঙ্গ মাঝে
শুনি তোমা কথা সকাল সাঝে
এতেই শান্ত মন দুর্গতির
আশাসুখ লই তোমাদের দুর্মতির।

বিদায় বেলায় স্বাগত বছরের স্বপ্ন। একটি বছর শেষ। মানে নতুন বছরের চলে আসা। মেলাতে হচ্ছে অনেক হিসাব। পাওয়া না পাওয়ার হিসাব। নতুন বছরে একেকজনের প্রত্যাশা যেন একেকরকম। আমাদের জীবন সংসারের অন্যান্য বিষয়ের মতোই আমাদের মাঝে নতুন বছরের আগমন ঘটে স্বপ্ন আর প্রত্যাশায়। শুরুটা স্বপ্ন আর প্রত্যাশার হলেও শেষটা অনেক সময় পাওয়া-না পাওয়ার হতাশায় মোড়ানো থেকে যায়।

সফলতা আর ব্যর্থতায় আমাদের বাংলাদেশসহ বিশ্বের সকল জাতি-গোষ্ঠীর মানুষ ২০১৬ সালে সর্বশেষ মাস ডিসেম্বর পার করছে, আর নতুন বছর ২০১৭-কে স্বাগত জানাতে প্রতীক্ষায় আছে নতুন সালের দোর গোড়ায় দাঁড়িয়ে। এমন শেষ ও শুরুর মুহূর্তে মানুষ মাত্রই মনে প্রশ্ন জাগে কি পেলাম, হারালামই বা কি? কিংবা কি পেলাম না যার প্রত্যাশা ছিল বছরের প্রতিটা ক্ষণ জুড়ে? পাওয়া-না পাওয়ার মাঝেই জীবনধারা, সময় এবং বাস্তবতা। বাস্তবতাকে মেনে নিয়েই আমরা মানব জীবন ও সমাজ-রাষ্ট্রকে সামনে এগিয়ে নিয়ে যাই আগামীর স্বপ্ন বাস্তবায়নে।

অনেক স্বপ্ন সত্যি হয় আবার অগণিত স্বপ্নের মৃত্যু হয় আতুর ঘরেই। তাই বলে কি থেমে থাকে জীবন? না। জীবন তার নিয়ম সূচির নিয়ম আর অনিয়মের মাঝেই এগিয়ে চলে প্রত্যাশা আর প্রাপ্তির অমীমাংশিত হিসেবকে মেনে নিয়েই।


জীবনজুড়ে প্রাপ্তির সাথেই আছে না পাওয়ার হতাশা। হতাশাকে মাড়িয়েই আমাদের এগিয়ে যেতে হবে নতুনের আহ্বানে। ‘যা চেয়েছি তা পাইনি, পেয়েছি যা চাইনি’-কে ভুলে গিয়ে দেশ-জনতার উন্নয়নে, নব উদ্যোগে-উচ্ছ্বাসে এবার বলতে চাই যা চেয়েছি তা পেয়েছি, আর যা পাইনি তা এবার পাবোই!

নতুন বছর ২০১৭-এ আমাদের প্রত্যাশাগুলো প্রাপ্তিতে ভরে উঠুক এমন শুভ আশাবাদ ব্যক্ত করছি। আমাদের প্রত্যাশা হোক জাগ্রত সামাজিক মূল্যবোধে আমাদের সবার জীবন আলোকিত হোক। বিভেদহীন সমাজ ও রাষ্ট্র বিনির্মাণে দল-মত নির্বিশেষে গণতান্ত্রিক ধারা অব্যাহত থাকুক। যেখানে মানুষগুলো বিশ্বজুড়েই অধিকার ফিরে পাক, আর যেনো কোনো দেশেই লঙ্ঘিত না হয় মানবাধিকার। বিশেষ করে আমাদের পার্শ্ববর্তী দেশ মায়ানমারের মানুষগুলো তাদের অধিকার ফিরে পাক, বাঁচুক তাদের মৌলিক অধিকার নিয়ে তাদের নিজের জন্মভূমিতে।

নতুন বছরের আগমন কেবলি উৎসবের নয়, আনন্দের সাথেই বিগত বছরে কর্ম পর্যালোচনা করে, ভুলকে শুধরে আগামী দিনের জন্য নতুন স্বপ্ন-সংকল্প ও নব-উদ্যোগের প্রেরণায় উজ্জীবিত হয়ে বিশ্বের কল্যাণ কামনা করে নতুনভাবে শুরু করা। নব-উদ্যমে শুরু হোক আমাদের জীবনে ইংরেজি নতুন বছর ২০১৭। ইংরেজি নববর্ষে সকলকে জানাই ‘হ্যাপি নিউ ইয়ার’_২০১৭। বছর শুরুর স্বপ্ন হোক সত্যি।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY