এইচআইভি আক্রান্তদের চিকিৎসায় সকলকে এগিয়ে আসতে হবে: প্রধানমন্ত্রী

এ ওয়ান নিউজ, ঢাকা: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এইচআইভি আক্রান্তদের চিকিৎসায় সামাজিক বৈষম্যহীনতা সুনিশ্চিত করতে সরকারের পাশাপাশি অন্যান্য সংস্থাসমূহ এবং প্রত্যেক ব্যক্তিকে নিজস্ব প্রেক্ষাপট থেকে একযোগে কাজ করার আহবান জানিয়েছেন।

শেখ হাসিনা ‘বিশ্ব এইডস দিবস ২০১৬’ উদ্যাপন উপলক্ষে আজ এক বাণীতে এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, এইচআইভি সংক্রমণ শুধুমাত্র একটি স্বাস্থ্যগত সমস্যা নয় বরং এইচআইভি আক্রান্ত ব্যক্তির ওপর এর সামাজিক, আর্থিক এবং মানসিক নেতিবাচক প্রভাব দেখা যায়। সুতরাং এইচআইভি নিয়ন্ত্রণ বা নির্মূল করার লক্ষ্যে প্রতিরোধ ও চিকিৎসা কর্মসূচিসমূহ বাস্তবায়নের পাশাপাশি ধর্মীয় ও সামাজিক অনুশাসন মেনে চলা, পারিবারিক সুসম্পর্ক বজায় রাখা, আত্মনিয়ন্ত্রণ, ইতিবাচক মনোবৃত্তির পরিচর্যা, উন্নত মননশীলতা এবং সুকুমার বৃত্তির অনুশীলন অত্যন্ত জরুরি।

তিনি বলেন, বাংলাদেশ সহ¯্রাব্দ উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রার (এমডিজি) অনেকগুলো সূচক যথার্থভাবেই অর্জন করতে সক্ষম হয়েছে। যার অন্যতম একটি হলো এইচআইভি সংক্রমণ কমানো।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, অদ্যাবধি বাংলাদেশে সাধারণ জনগোষ্ঠীর মধ্যে এইচআইভি সংক্রমণের হার শূন্য দশমিক এক শতাংশের নিচে। এই অর্জনের ক্ষেত্রে সরকারি কার্যক্রমের পাশাপাশি বেসরকারি প্রতিষ্ঠান, উন্নয়ন সহযোগী ও জাতিসংঘের অঙ্গ সংস্থাসমূহের অবদান বিশেষভাবে উল্লেখযোগ্য।

প্রধানমন্ত্রী দৃঢ় আশাবাদ ব্যক্ত করে বলেন, আমি আশা করি, সকলের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় স্বাস্থ্যখাতে রূপকল্প ২০২১ ও ২০৪১ বাস্তবায়নের মাধ্যমে সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের ‘সোনার বাংলা’ গড়ে তুলবো।

তিনি ‘বিশ্ব এইডস দিবস ২০১৬’ উপলক্ষে গৃহীত সকল কর্মসূচির সার্বিক সাফল্য ও কামনা করেন।বাসস

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY