গোলাপগঞ্জে বাস-অটোরিাক্সা মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ১ , আহত ৫

গোলাপগঞ্জ প্রতিনিধি: গোলাপগঞ্জে বাস- অটোরিাক্সার মুখোমুখি সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।এতে ১ জন নিহত ও ৫ জন যাত্রী গুরুতর আহত হয়েছেন। তাদের আশংকাজনক অবস্থায় হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। বুধবার দুপুর সাড়ে ১২ টায় গোলাপগঞ্জ-ঢাকাদক্ষিণ রোডের উপজেলা পরিষদের সম্মুখে এ ঘটনাটি ঘটে।ঘটনার পর স্থানীয়রা বাসের ড্রাইভারকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেন। তাৎক্ষণিক গোলাপগঞ্জ মডেল থানার একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে দূর্ঘটনায় কবলিত বাস ও অটোরিক্সা উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসেন।

স্থানীয় সুত্রে জানা যায়, বুধবার বেলা সাড়ে ১২ টায় সিলেট থেকে ছেড়ে আসা ভাদেশ্বরগামী একটি মিনিবাস (সিলেট-জ-১১-০৬২৩) বিপরীত দিক থেকে আসা একটি সিএনজি অটোরিক্সার (সিলেট-থ-১৩-০২২৩) সাথে উপজেলা পরিষদের সম্মুখে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়।এতে সিএনজি চালিত অটোরিক্সাটি দুমড়ে-মুচড়ে যায়। এতে অটোরিক্সার চালকসহ ৬ জন যাত্রী গুরুতর আহত হন। স্থানীয়দের সহায়তায় আহতদের উদ্ধার করে প্রথমে গোলাপগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এবং পরে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। গুরুতর আহত অটোরিক্সার ড্রাইভার সামাদ আহমদ (৪০) চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন। নিহত ড্রাইভার গোলাপগঞ্জ উপজেলার ভাদেশ্বর দক্ষিণভাগ এলাকার আফতাব আহমদের পুত্র।চিকিৎসাধীন অপর ৫ জন আহত যাত্রীর অবস্থা গুরুতর বলে চিকিৎসক জানিয়েছেন।

দূর্ঘটনায় আহতরা হলেন- গোলাপগঞ্জ উপজেলার ভাদেশ্বর দক্ষিণভাগ এলাকার মুসা আহমদের স্ত্রী রুনা বেগম (২৬) ও তার পুত্র ইফাত আহমদ (৬),খাইয়াটিকর এলাকার অমর আলী পুত্র মুসা আহমদ (৪৫), গোলাপগঞ্জ সদর ইউনিয়নের রাণাপিং এলাকার মো. শহিদ আলীর স্ত্রী আসমনা বেগম(২২), বুধবারী বাজার ইউনিয়নের লামাচনন্দরপুর গ্রামের আব্দুল মুক্তাদিরের কন্যা রুমানা বেগম(১৬)।

এব্যাপারে গোলাপগঞ্জ মডেল থানার অসি একেএম ফজলুল হক শিবলীর সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি ঘটনার সত্যতা ও ড্রাইভারের মৃত্যুর খবরটি নিশ্চিত করেন।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY