রবিবার 17 ফেব্রুয়ারী 2019 - ৫, ফাল্গুন, ১৪২৫

যুক্তরাষ্ট্রের সুপ্রিম কোর্টের বিচারক হিসেবে শপথ নিলেন ক্যাভানো

০৭ অক্টোবর, ২০১৮ ১০:৪০:৫২

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: যৌন অসদাচরণের অভিযোগ নিয়ে বিস্তর বিতর্ক, বিক্ষোভ আর তদন্তের পর যুক্তরাষ্ট্রের সুপ্রিম কোর্টের বিচারক হিসেবে শপথ নিলেন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের মনোনীত ব্রেট ক্যাভানো।

যৌন নিপীড়নের অভিযোগ মাথায় নিয়ে বিতর্কের জন্ম দেওয়া ব্রেট কাভানাহকে সুপ্রিম কোর্টের বিচারক হিসেবে নিয়োগ দিয়েছে মার্কিন সিনেট। শনিবার সিনেটের এ সংক্রান্ত ভোটাভুটিতে ৫০-৪৮ ভোটে সুপ্রিম কোর্টে নিজের নিয়োগ নিশ্চিত করেন ট্রাম্প মনোনীত কাভানাহ। এর ফলে যুক্তরাষ্ট্রের সর্বোচ্চ আদালতে ট্রাম্পের নিজ দল রিপাবলিকান পার্টির অবস্থান আরও সংহত হলো।
 
শনিবার ভোটাভুটির মাত্র কয়েক ঘণ্টা আগে কাভানাহকে সমর্থন দেন দুই গুরুত্বপূর্ণ সিনেটর। তারা হচ্ছেন রিপাবলিকান সিনেটর সুসান কলিন্স ও ডেমোক্র্যাট সিনেটর জোয়ে ম্যানকিন। মূলত তাদের সমর্থন পাওয়ায় যৌন নিপীড়নের অভিযোগে বিতর্কিত কাভানাহর নিয়োগ প্রায় নিশ্চিত হয়ে যায়। ব্রেট কাভানাহ’র নিয়োগ বাতিলের দাবিতে বিক্ষোভ জোরালো হয়ে ওঠার মধ্যেই তার নিয়োগ চূড়ান্ত হওয়ার খবর আসে।

কাভানাহ’র বিরুদ্ধে এফবিআই-এর তদন্তে যৌন নিপীড়নের অভিযোগ প্রমাণিত হয়নি বলে রিপাবলিকানরা দাবি করার পর ক্ষোভে ফেটে পড়ে বিক্ষোভকারীরা। বৃহস্পতিবার (৪ অক্টোবর) ওয়াশিংটনের রাস্তায় রাস্তায় বিক্ষোভ করে লাখো মানুষ। সেখান থেকে তিন শতাধিক বিক্ষোভকারীকে গ্রেফতার করা হয়।

যুক্তরাষ্ট্রের সুপ্রিম কোর্ট একজন প্রধান বিচারপতি ও আটজন বিচারপতি নিয়ে গঠিত। প্রেসিডেন্ট মনোনীত বিচারপতিদের নিয়োগ দেয় সিনেট। একবার নিয়োগ পাওয়ার পর পদত্যাগ, অবসর বা অভিশংসন ছাড়া ওই বিচারপতিরা আমৃত্যু দায়িত্ব পালন করতে পারেন। এ বছর বিচারপতি অ্যান্থনি কেনেডি অবসরে যাওয়ার ঘোষণা দেওয়ার পর নতুন বিচারপতি নিয়োগের প্রেক্ষাপট তৈরি হয়। গত জুলাইয়ে ব্রেট কাভানাহকে সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি হিসেবে মনোনীত করেন ট্রাম্প।

কাভানাহর বিরুদ্ধে প্রফেসর ক্রিস্টিন ব্লাসে ফোর্ডসহ তিনজন নারী যৌন নিপীড়নের অভিযোগ তোলেন। এ নিয়ে এফবিআইকে তদন্তের নির্দেশ দিতে বাধ্য হন ট্রাম্প। শুরু থেকে এফবিআইয়ের তদন্ত প্রক্রিয়ার স্বচ্ছতা নিয়েও প্রশ্ন ওঠে। পাঁচ দিনের মাথায় তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিয়েছে এফবিআই। জনসমক্ষে প্রতিবেদনটি প্রকাশ করা না হলেও ট্রাম্প ও রিপাবলিকানরা দাবি করতে থাকে, ওই প্রতিবেদনে কাভানাহকে অভিযোগ থেকে নিষ্কৃতি দেওয়া হয়েছে। 



এ সম্পর্কিত খবর

ফেঞ্চুগঞ্জে চেয়ারম্যান পদে আব্দুর রকিব চৌধুরীর মনোনয়ন সংগ্রহ

ফেঞ্চুগঞ্জে চেয়ারম্যান পদে আব্দুর রকিব চৌধুরীর মনোনয়ন সংগ্রহ

আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলায় স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন সংগ্রহ করেছেন বিশিষ্ট সমাজসেবক,

জলবায়ুর বিরূপতা রোধে ‘সদিচ্ছা’ চাইলেন প্রধানমন্ত্রী

জলবায়ুর বিরূপতা রোধে ‘সদিচ্ছা’ চাইলেন প্রধানমন্ত্রী

এওয়ান নিউজ: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জলবায়ু পরিবর্তনের বিরূপ প্রভাব থেকে বিশ্বকে রক্ষায় ‘সদিচ্ছা’ নিয়ে কাজ

শুভ জন্মদিন মিস্টার ৩৬০°

শুভ জন্মদিন মিস্টার ৩৬০°

স্পোর্টস ডেস্ক: ক্রিকেটে অনেক ব্যাটসম্যানেরই নিজের পছন্দের কিছু শট থাকে বা পছন্দের নির্দিষ্ট একটি জায়গা


চিত্রনায়িকা সানাই মাহবুব আটক

চিত্রনায়িকা সানাই মাহবুব আটক

নিজস্ব প্রতিবেদক: ইন্টারনেটে অপেশাদার এবং অপ্রাসঙ্গিক ভিডিও ছড়ানোর অভিযোগে অভিনেত্রী সানাই মাহবুব সুপ্রভাকে আটক করেছে

স্যান্ডউইচ ‘চুরির’ অভিযোগে সাংসদের পদত্যাগ

স্যান্ডউইচ ‘চুরির’ অভিযোগে সাংসদের পদত্যাগ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: দক্ষিণ মধ্য ইউরোপের দেশ স্লোভেনিয়ার একজন পার্লামেন্ট সদস্যকে স্যান্ডউইচ চুরির অভিযোগে পদত্যাগ করতে

ডানেডিনে মাহমুদউল্লাহদের জন্য ‘বাংলাদেশি’ ভালোবাসা

ডানেডিনে মাহমুদউল্লাহদের জন্য ‘বাংলাদেশি’ ভালোবাসা

খেলাধুলা ডেস্ক: ডানেডিনে নেমে নিউজিল্যান্ডের রীতিতে অভ্যর্থনার পাশাপাশি বাংলাদেশি নাগরিকদের সংবর্ধনাও পেলে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল।


রাজীবের বফর্সের পুনরাবৃত্তি ঘটাবে মোদির রাফাল?

রাজীবের বফর্সের পুনরাবৃত্তি ঘটাবে মোদির রাফাল?

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: ব্যবধান পুরো তিন দশকের। প্রথমটা কামান, দ্বিতীয়টা বিমান। প্রথমটা পতন ঘটিয়েছিল সেই সময়কার

পেনাল্টি মিস করেও জয়ের নায়ক মেসি

পেনাল্টি মিস করেও জয়ের নায়ক মেসি

স্পোর্টস ডেস্ক: ম্যাচের প্রথম গোলটি মেসির পা থেকেই এসেছিলো পেনাল্টি থেকে। কিন্তু দ্বিতীয়বার একই সুযোগ

যার মধ্যে সততা নাই, আল্লাহর ওয়াস্তে তার বিচারিক পেশা ছেড়ে দেওয়া উচিত: জেলা জজ

যার মধ্যে সততা নাই, আল্লাহর ওয়াস্তে তার বিচারিক পেশা ছেড়ে দেওয়া উচিত: জেলা জজ

পাইকগাছা (খুলনা) প্রতিনিধি ঃ     খুলনা জেলা ও দায়রা জজ মশিউর রহমান চৌধুরী বলেছেন, সবার



আরো সংবাদ












ইরানে আত্মঘাতী হামলায় ২৭ জন সেনা নিহত

ইরানে আত্মঘাতী হামলায় ২৭ জন সেনা নিহত

১৪ ফেব্রুয়ারী, ২০১৯ ১০:৩৭


ব্রেকিং নিউজ