বৃহস্পতিবার 25 এপ্রিল 2019 - ১১, বৈশাখ, ১৪২৬

নির্বাচন কমিশন সরকারের অনুগত: নজরুল ইসলাম

০৯ নভেম্বর, ২০১৮ ১৬:২৩:৫২

ফাইল ছবি
ফাইল ছবি

নিজস্ব প্রতিবেদক: নির্বাচন কমিশন সরকারের অনুগত বলে অভিযোগ করে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান বলেছেন, ‘কমিশনের প্রতি মানুষের কোন আস্থা ও বিশ্বাস নাই। প্রতীক বরাদ্দের আগেই শহরে ও সারা দেশে নৌকা মার্কা প্রতীক ব্যবহার করে প্রচারণা শুরু হয়ে গেছে। এগুলো নির্বাচন কমিশন দেখে না। কারণ এ কমিশন সরকারের অনুগত।’

শুক্রবার (৯ নভেম্বর) দুপুরে জাতীয় প্রেস ক্লাবের কনফারেন্সে লাউঞ্জে জাতীয় গণতান্ত্রিক পার্টির (জাগপা) আয়োজিত এক আলোচনা সভায় অংশ নিয়ে তিনি এসব কথা বলেন।

নজরুল ইসলাম খান বলেন, ‘নির্বাচনি তফসিল ঘোষণার পর থেকে রাজনৈতিক তৎপরতা শুরু হওয়ার কথা। তবে এখনই প্রতীক দিয়ে পোস্টার বানানো ও তার প্রচারণা শুরু হয়ে গেছে। প্রতীক বরাদ্দের আগেই বিভিন্ন শহরে ও সারাদেশ রঙিন পোস্টারে ভরে গেছে। এসব পোষ্টারে নৌকার প্রতীক ব্যবহার করে লেখা হয়েছে নৌকা মার্কায় ভোট দিন, অমুককে ভোট দিন।’ সরকারের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানেও এই প্রচারণা চলছে বলে তিনি অভিযোগ করেন।

তিনি এ সময় অভিযোগ করেন, ‘নির্বাচন কমিশনের এসব চোখে পড়ে না। কারণ দায়িত্বপ্রাপ্ত ব্যক্তিরা বাড়ি থেকে সুরঙ্গ পথ ব্যবহার করে নির্বাচন কমিশনে যাওয়া-আসা করে। তাই রাস্তাঘাটে ও বিভিন্ন জায়গায় লাগানো এসব পোস্টার ও ব্যানার-ফেস্টুন তাদের চোখে পড়ে না। যদি এগুলো তাদের চোখে পড়তো, তাহলে তারা আইন অনুযায়ী এগুলো সরিয়ে ফেলার নির্দেশ দিতো।’

ইভিএম ব্যবহার প্রসঙ্গে বিএনপির এই সিনিয়র নেতা বলেন, ‘এ বিষয়ে সংসদে কোনও বিল পাস হলো না, অথচ রাষ্ট্রপতিকে দিয়ে ইভিএম ব্যবহারের বিষয়টি পাশ করিয়ে নেওয়া হলো। এ বিষয়ে নির্বাচন কমিশনার বলেছেন শহরগুলোতে সীমিতভাবে ইভিএম ব্যবহার করা হবে।’

তিনি বলেন, ‘আগামী নির্বাচনে শরহগুলোতে আওয়ামী লীগের হারার সম্ভাবনা বেশি। কারণ শহরে সচেতন মানুষের বাস। আর ওইখানেই এই যন্ত্র ব্যবহার করা হবে, যাতে করে চুরি করে পাশ করিয়ে দেওয়া যায়। অথচ যে যন্ত্রটি বিশ্বের অনেক উন্নত দেশ বাতিল করে দিচ্ছে সেটা আমাদের দেশে ব্যবহার করার এত জুনুন কেন?’

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘তার মুক্তির বিষয়ে সংবিধানের কোথায় বাধা আছে? হাইকোর্ট তাকে জামিন দিল, কিন্তু নিম্ন আদালত জামিন দিতে পারলো না। যে মামলায় খালেদা জিয়াকে জামিন দেওয়া হলো না ওই মামলায় অন্যরা জামিনে আছেন।’

তিনি উপস্থিত সবার উদ্দেশে এ সময় বলেন, ‘ভাবেন একবার, অভিযোগ যে- খালেদা জিয়া হুকুম দিয়েছেন, আর কুমিল্লার কিছু লোক গাড়িতে আগুন দিয়েছে এবং সেখানে লোক মারা গেছে। হুকুম দিয়েছেন বলে তার জামিন হবে না। তিনি তো তখন আটক ছিলেন গুলশান অফিসে। সেখানে তখন আমিও ছিলাম। বিদ্যুতের লাইন কাটা ছিল, ফোনের লাইন কাটা ছিল, খাবার ঢুকতে পারত না, আমাদের অনেকে খাবার নিতে গিয়ে গ্রেপ্তার হয়েছে। সেখান থেকে কিভাবে সে হুকুম দিলেন? সেই হুকুমের আসামি হিসেবে তার জামিন হলো না?’

নজরুল ইসলাম খান দাবি করেন, ‘আসলে সরকার বেগম খালেদা জিয়াকে ভয় পায়। তার জনসমর্থনকে ভয় পায় এজন্যই তাকে ছাড়তে চায় না। তাকে যদি ছাড়া হয় তবে জনজোয়ারের সৃষ্টি হবে। আর সেই জোয়ারে এই সরকার ভেসে যাবে।’

তিনি বলেন, ‘এই পরিস্থিতির বিষয়ে আমরা ২০ দল আলোচনায় বসবো। আরেকটি জোট হয়েছে সেখানেও আমাদের ২০ দলের নেতৃবৃন্দ যুক্ত আছেন। সেখানেও সিদ্ধান্ত হবে। আর সেই সিদ্ধান্ত আগামী দিনে আমাদের দাবি মানার জন্য যথোপযুক্ত হবে। যে সিদ্ধান্ত হবে সে সিদ্ধান্ত অনুযায়ী আমরা আগামী দিনের লড়াই-সংগ্রাম করবো এবং দেশকে লুটেরাদের হাত থেকে মুক্ত করার চেষ্টা করবো।’

জাগপার ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ব্যারিস্টার তাসমিয়া প্রধানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন- জাগপার সিনিয়র সহ-সভাপতি রাশেদ প্রধান, সাধারণ সম্পাদক খন্দকার লুৎফর রহমান, জাগপা’র কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি আবু মোজাফফর মো. আনাছ, রকিব উদ্দিন চৌধুরী মুন্না, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আসাদুর রহমান খান, অধ্যাপক ইকবাল হোসেন, বেলায়েত হোসেন মোড়ল প্রমুখ।



এ সম্পর্কিত খবর

সিপিডির চেয়ে আমরা বড়: অর্থমন্ত্রী

সিপিডির চেয়ে আমরা বড়: অর্থমন্ত্রী

এওয়ান নিউজ: অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেছেন, ‘সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগ (সিপিডি) তাদের

নুসরাতের ভাইকে চাকরি দিলেই ন্যায়বিচার হবে না: আফরোজা আব্বাস

নুসরাতের ভাইকে চাকরি দিলেই ন্যায়বিচার হবে না: আফরোজা আব্বাস

ফেনী প্রতিনিধি: বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী মহিলা দলের সভানেত্রী আফরোজা আব্বাস বলেছেন, 'দেশে এখন গণতন্ত্র নেই, আছে

৩০ এপ্রিল শাহবাগে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের গণজমায়েত

ধর্ষণ মহামারী আকার ধারণ ও আইনশৃঙ্খলার অবনতি খুবই দৃশ্যমান: ড. কামাল

ধর্ষণ মহামারী আকার ধারণ ও আইনশৃঙ্খলার অবনতি খুবই দৃশ্যমান: ড. কামাল

এওয়ান নিউজ: জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতা ও গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেন বলেছেন, ধর্ষণ মহামারী


ছাতকে শিক্ষক কবিরুল ইসলাম গণসংবর্ধিত 

ছাতকে শিক্ষক কবিরুল ইসলাম গণসংবর্ধিত 

ছাতক প্রতিনিধিঃ ছাতকের চন্দ্রনাথ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সিনিয়র শিক্ষক এবং বিভিন্ন বিষয়ে স্বীকৃতি প্রাপ্ত ব্যক্তিত্ব

শান্তিপূর্ণ আন্দোলনের মাধ্যমে খালেদা জিয়াকে মুক্ত করে আনা হবে: মঞ্জু

সাতক্ষীরা জেলা বিএনপির ৫১ সদস্য বিশিষ্ট আহবায়ক কমিটি গঠন

সাতক্ষীরা জেলা বিএনপির ৫১ সদস্য বিশিষ্ট আহবায়ক কমিটি গঠন

নিজস্ব প্রতিনিধি: সাংগঠনিক তৎপরতা বৃদ্ধি ও রাজনৈতিক কর্মকান্ড গতিশীল করতে সাতক্ষীরা জেলা বিএনপির ৫১ সদস্য

কলাপাড়ায় গৃহবধু গনধর্ষনের দুই আসামি রিমান্ডে 

কলাপাড়ায় গৃহবধু গনধর্ষনের দুই আসামি রিমান্ডে 

রাসেল কবির মুরাদ , কলাপাড়া(পটুয়াখালী)প্রতিনিধি  ঃ  কলাপাড়ার পশ্চিম চাপলী গ্রামে স্বামী সিদ্দিককে মারধর করে বেধে


পরস্ত্রীর সাথে অনৈতিক কাজ : গনপিটুনি দিয়ে পুলিশে দিলো এলাকাবাসী

পরস্ত্রীর সাথে অনৈতিক কাজ : গনপিটুনি দিয়ে পুলিশে দিলো এলাকাবাসী

স্টাফ রিপোর্টার, ঝিনাইদহঃ ঝিনাইদহের হরিনাকুন্ডু উপজেলার পৌরসভার মুচি পাড়ার সুদে কারবারী রবিউল ইসলামকে অনৈতিক কর্মকান্ডে

ঝিনাইদহে বাস ও নসিমনের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত হয়েছে নসিমন চালক

ঝিনাইদহে বাস ও নসিমনের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত হয়েছে নসিমন চালক

স্টাফ রিপোর্টার, ঝিনাইদহঃ ঝিনাইদহে বাস-আলসাধু সংঘর্ষে আশরাফুল ইসলাম (৩০) নামে এক চালক নিহত হয়েছে। বুধবার বিকালে

চায়ের দোকানের আড়ালে সেখানে কেরাম খেলা

ঝিনাইদহ শহরের আরাপপুর এলাকায় টাকার বিনিময়ে কেরাম খেলা অভিযানে বোর্ড জব্দ জরিমানা

ঝিনাইদহ শহরের আরাপপুর এলাকায় টাকার বিনিময়ে কেরাম খেলা অভিযানে বোর্ড জব্দ জরিমানা

স্টাফ রিপোর্টার, ঝিনাইদহঃ ঝিনাইদহ শহরের আরাপপুর এলাকায় টাকার বিনিময়ে কেরাম খেলা হয়। বুধবার দুপুরে গোপন সুত্রে



আরো সংবাদ














ব্রেকিং নিউজ