বিভাগ - রান্নাঘর

এবার হাজির মাস্ক পরোটা!

প্রকাশিত

এওয়ান নিউজ ডেস্ক: করোনা পরবর্তী সময়ে ফ্যাশন থেকে শুরু করে খাওয়া—সবেতেই চলে এসে করোনার প্রভাব। এবার তার প্রমাণ মিলল মাদুরাইয়ের হোটেল টেম্পলে। মানুষের মধ্যে সচেতনতা তৈরি করতে এই হোটেলে তৈরি হচ্ছে মাস্ক পরোটা। অবাক হচ্ছেন? ভাবছেন গল্প কথা? এক্কেবারেই নয়। বরং ঘোর বাস্তব। করোনা প্যানডেমিক থেকে বাঁচার অন্যতম মন্ত্র হয়ে দাঁড়িয়েছে মাস্ক পরা। কিন্তু এখনও বহু মানুষ আছেন যাঁরা এর গুরুত্ব বুঝতে পারছেন না। ফলে মানুষকে নিজেদের কায়দায় বোঝানোর দায়িত্ব নিয়েছেন হোটেল টেম্পলের কর্তৃপক্ষ। তাঁরা তৈরি করছেন মাস্ক পরোটা গ্রাহকদের জন্যে।

টেম্পল হোটেলের চেইনের মালিক কে এল কুমার একটি সাক্ষাত্‍কারে জানিয়েছেন, ‘আমরা নিয়মিত খবরে নজর রাখছি। সরকার কীভাবে সাধারণ মানুষকে মাস্ক পরার প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে শিক্ষিত করে তোলার চেষ্টা করছে তাও ফলো করছি।’ সেই থেকেই এই আইডিয়া আসে তাঁর মাথায়। দুটি পরোটার দাম ৫০ টাকা রেখেছেন কে এল কুমার। এবং এর সঙ্গে পরিবেশন করা হয় কোর্মা ও রায়তা। ৭ জুলাইয়ের মধ্যে ইউনিক এই পরোটা ৫০০ সেট বিক্রি হয়েছে। ক্রেতাদের মধ্যে এর জনপ্রিয়তাও তুঙ্গে। কুমারের কথায়, ‘প্রথম প্লেট বিক্রি হওয়ার আগেই সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে মাস্ক পরোটার খবর ছড়িয়ে পড়ে। লাঞ্চের মধ্যে ৫০ সেট পরোটা বিক্রি হয়ে যায় প্রথম দিনেই।’

তবে ট্রেন্ডি ও আউট অফ বক্স খাবার তৈরির ক্ষেত্রে এটাই প্রথম অভিজ্ঞতা নয় কে এল কুমারের। সাক্ষাত্‍কারে তিনি জানান, ‘আমি সব সময়েই পপ কালচার ট্রেন্ডের কথা মাথায় রেখেই নতুন নতুন খাবার তৈরির দিকে নজর দিয়েছি। ২০০২ সালে রজনীকান্তের বাবা ছবিটি মুক্তি পাওয়ার পর আমার জীবনের প্রথম দোসা ইনোভেশন করি। তৈরি করি বাবা পনির মসালা দোসা। সেই সঙ্গে ছিল সবজি কোর্মা যেটি সাজানো হত রজনীকান্তের সিগনেচার হাতের ভঙ্গিতে।’

অন্যদিকে করোনা মোকাবিলায় মানুষের শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে নতুন এক সন্দেশ নিয়ে হাজির কলকাতার প্রসিদ্ধ মিষ্টান্ন বিক্রেতা ‘বলরাম মল্লিক’ (Balaram Mullick & Radharaman Mullick)। এই সন্দেশের নাম ‘ইমিউনিটি সন্দেশ’ (Immunity Sandesh)। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রকের তরফেও মানুষের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে দুধের সঙ্গে সামান্য হলুদ মিশিয়ে খাওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়েছিল। সেই হলুদের পরিমাণ ভরপুর রয়েছে এই সন্দেশে। এছাড়াও রয়েছে ১৫ রকমের মশলা। যেমন তুলশি, জষ্ঠীমধু, বেইলিফ, সিনামন, কার্ডামম, গোলমরিচ, হিমালয়ান মধু, গ্রিন টি, আদা, গলাঙ্গল এবং আরও বেশ কিছু পদ দিয়ে তৈরি করা হয়েছে এই ইমিউনিটি সন্দেশ।