করোনা টেস্টের রিপোর্ট আসার আগেই ফার্মেসি ব্যবসায়ীর মৃত্যু

প্রকাশিত

কুমিল্লা প্রতিনিধি: কুমিল্লার লাকসামে করোনা উপসর্গ নিয়ে লোকমান হোসেন (৪৪) নামক এক ফার্মেসি ব্যবসায়ী মৃত্যুবরণ করেছেন। নমুনা দেয়ার একদিনের মাথায় রিপোর্ট আসার পূর্বেই সোমবার (১ জুন) রাত ১১টার দিকে তিনি শহরের পুরাতন বাজারস্থ নিজ বাসায় করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা যান। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার গাইডলাইন অনুসারে তাকে রাত ৩টায় দাফন করা হয়েছে বলে জানান পৌর প্যানেল মেয়র-২ ও স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর আবদুল আলিম দিদার।

তিনি জানান, লাকসাম পৌর শহরের ৬নং ওয়ার্ডের আওতাধীন পুরাতন বাজারের আবদুস সামাদ এর ছেলে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সন্নিকটে সামনিরপুল এলাকায় লোকমান ফার্মেসির মালিক। তিনি অত্যন্ত সততার সাথে ব্যবসা করে আসছিলেন। কয়েকদিন থেকে তিনি জ্বর, হাঁচি, কাশি ও শাসকষ্টে ভুগতে থাকায় রবিবার (৩১ মে) উপজেলা স্বাস্থ্যবিভাগের করোনা র‌্যাপিড রেসপন্স টিমের নিকট নমুনা দেন। তিনি স্থানীয় চিকিৎসকের পরামর্শে ওষুধ সেবন করে আসছিলেন। নমুনা দেয়ার পর রিপোর্ট আসার পূর্বেই সোমবার (১ জুন) রাত ১১টার দিকে তিনি নিজ বাসায় মারা যান। তার মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে আসে।

করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা যাওয়া ব্যক্তির গোসল, জানাজা ও দাফন কাজ সম্পন্ন করেন উপজেলা প্রশাসন কর্তৃক প্রশিক্ষিত ডা. আবদুল মমিনের নেতৃত্বে গঠিত ইসলামী আন্দোলনের টিম ও পৌর প্যানেল মেয়র-২ ও স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর আবদুল আলিম দিদারের গঠিত টিম। লাকসাম উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মোহাম্মদ আবদুল আলী করোনা উপসর্গ নিয়ে ফার্মেসি ব্যবসায়ী লোকমান হোসেনের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, মারা যাওয়ার একদিন পূর্বে তার নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য ল্যাবে পাঠানো হয়েছে। রিপোর্ট আসলে করোনা ছিল কিনা তা নিশ্চিত হওয়া যাবে।