বিভাগ - আইন-আদালত

নিয়মিত আদালত না খোলা পর্যন্ত ওয়াসার পানির বর্ধিত মূল্য আদায় করা যাবে

প্রকাশিত

এওয়ান নিউজ: সেবার মান না বাড়িয়ে গত ১ এপ্রিল থেকে ঢাকা ওয়াসার পানির ২৫ শতাংশ মূল্য বৃদ্ধির সিদ্ধান্ত স্থগিত করেছিলেন হাইকোর্ট। হাইকোর্টের ওই আদেশ ১৬ সপ্তাহের জন্য স্থগিত করেছিলেন সুপ্রিম কোর্ট আপিল বিভাগের ভার্চুয়াল চেম্বার আদালত। আদালত সে আদেশ সংশোধন করে ১৬ সপ্তাহের পরিবর্তে নিয়মিত কোর্ট না খোলা পর্যন্ত হাইকোর্টের আদেশটি স্থগিত করেছেন। এছাড়া নিয়মিত কোর্ট খোলার পর এ মামলার পরবর্তী শুনানি হবে বলেও আদেশ দিয়েছেন। এর ফলে নিয়মিত কোর্ট না খোলা পর্যন্ত ওয়াসার গ্রাহকদের কাছে পানির ২৫ শতাংশ বর্ধিত মূল্য নিতে বাধা নেই বলে জানিয়েছেন আইনজীবীরা।

মঙ্গলবার (৭ জুলাই) চেম্বার বিচারপতি মো. নুরুজ্জামানের ভার্চুয়াল চেম্বার আদালত এ আদেশ দেন। পরে মামলার রিটকারী আইনজীবী মো. তানভীর আহমেদ আদেশের বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

গত ৩০ জুন হাইকোর্টের আদেশ ১৬ সপ্তাহের জন্য স্থগিত করেন সুপ্রিম কোর্ট আপিল বিভাগের চেম্বার আদালত। চেম্বার বিচারপতি মো. নুরুজ্জামানের ভার্চুয়াল চেম্বার আদালত স্থগিতের এ আদেশ দেন। আদালতে ওয়াসার পক্ষে শুনানিতে ছিলেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম। অন্যদিকে রিটকারী আইনজীবী মো. তানভীর আহমেদের পক্ষে ছিলেন ব্যারিস্টার অনীক আর হক।

গত ১ এপ্রিল থেকে ঢাকা ওয়াসার পানির ২৫ শতাংশ মূল্য বৃদ্ধির সিদ্ধান্ত আগামী ১০ আগস্ট পর্যন্ত স্থগিতের আদেশ দেন হাইকোর্ট। ২২ জুন এক রিটের শুনানি শেষে বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিমের ভার্চুয়াল হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন। এরপর এ আদেশ স্থগিত চেয়ে গত ২৩ জুন আবেদন জানানো হয়।

প্রসঙ্গত, গত ১ এপ্রিল থেকে আবাসিক গ্রাহকদের পানির বিল ২৫ শতাংশ বৃদ্ধি করে ওয়াসা কর্তৃপক্ষ। আর বাণিজ্যিক গ্রাহকের বিল প্রায় ৮ শতাংশ বৃদ্ধি করা হয়। নতুন মূল্যহার অনুযায়ী প্রতি হাজার লিটার পানির মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে ১৪ টাকা ৪৬ পয়সা, যা আগে ছিল ১১ টাকা ৫৭ পয়সা। আর বাণিজ্যিকে প্রতি হাজার লিটারে ৩৭ টাকা ৪ পয়সা থেকে বাড়িয়ে ৪০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। সর্বশেষ গত সেপ্টেম্বরে পানির মূল্য ৫ শতাংশ বাড়ানো হয়েছিল।