বাগেরহাটে মানসিক প্রতিবন্দীকে ধর্ষণ

প্রকাশিত

বাগেরহাট প্রতিনিধি: বাগেরহাট সদর উপজেলায় ১৫ বছর বয়সী মানসিক প্রতিবন্দী কিশোরীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় সোমবার রাতে ওই কিশোরীর মা বাদী হয়ে ধর্ষণের দায়ে অভিযুক্ত হাফিজুর রহমান (৪৫)কে আসামী করে বাগেরহাট মডেল থানায় মামলা দায়ের করেছেন। নির্যাতিতা কিশোরীর ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য মঙ্গলবার সকালে বাগেরহাট সদর হাসপাতালে পাঠিয়েছে পুলিশ।

অভিযুক্ত হাফিজুর রহমান বাগেরহাট সদর উপজেলার বারাকপুর গ্রামের নওয়াব আলী শেখের ছেলে। নির্যাতিতার মা বলেন, সোমবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে মেয়েকে ঘরে রেখে আমার স্বামী পাশের বাড়িতে কাজ করতে যায় এবং আমি বাজারে চাল আনতে যাই। পরে বাজার শেষে বাড়ি বাড়ি ফিরে আসলে হাফিজুর রহজমান আমার ঘর থেকে বের হয়ে দৌড়ে পালিয়ে যায়। আমি ঘরে ঢুকলে মেয়ে কান্নাকাটি করে আমাকে জানায় হাফিজুর রহমান আমাকে ধর্ষণ করেছে। পরে বিষয়টি স্থানীয় জনপ্রতিনিধি, প্রতিবেশী ও পুলিশকে জানাই। মেয়ের উপর নির্যাতনকারী হাফিজুরের বিচার দাবি জানাই।

বােেগরহাট মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ মাহতাব উদ্দিন বলেন, নির্যাতিতার মায়ের অভিযোগের ভিত্তিতে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। কিশোরীকে উদ্ধার করে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য বাগেরহাট সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। অভিযুক্ত হাফিজুর রহমানকে গ্রেফতারের জন্য পুলিশ অভিযান শুরু করেছে।