বানিজ্যমন্ত্রীর এলাকায় পেঁপে ও মিষ্টি কুমড়ার কদর বেড়েছে

প্রকাশিত

সারওয়ার আলম মুকুল, কাউনিয়া (রংপুর) প্রতিনিধি ঃ রংপুর জেলার কাউনিয়া উপজেলার বিভিন্ন হাট-বাজারে পিঁয়াজের দাম বৃদ্ধি পাওয়ায় হোটেল ব্যবসায়ীরা বিভিন্ন মাছ-মাংসে নাম মাত্র পিঁয়াজ দিয়ে তার বিপরীতে পিঁয়াজের বিকল্প হিসেব চাহিদা মেটাচ্ছে পেঁপে অথবা মিষ্টি কুমড়া দিয়ে। সেই কারনেই তরকারীর ঝোল গারো করার জন্য পিঁয়াজের বিকল্প হিসেবে এখন কদর বেড়েছে পেঁপে ও মিষ্টি কুমড়ার। বিভিন্ন হাট-বাজার ঘুরে জানাগেছে, সারাদেশের ন্যায় কাউনিয়া উপজেলার বিভিন্ন হাট-বাজারে ২৫০ টাকা থেকে ২৬০ টাকা কেজি দরে পিঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে। এতো বেমী দামে কেনার ক্ষমতাটা নি¤œ আয়ের মানুষের না থাকলেও হোটেল ব্যবসায়ীরা পিঁয়াজের বিপরীতে তারা পেঁপে ও মিষ্টি কুমড়া দিয়ে পিঁয়াজের ¯^াদ মিটাচ্ছে খাবারের মধ্যে। এ ব্যপারে একজন হোটেল ব্যবসায়ীর সঙ্গে কথা হলে তিনি বলেন, প্রতিদিন তার হোটেলে পিঁয়াজ লাগে ২০ কেজি। বর্তমানে সে ২০ কেজির স্থানে ৫ কেজি পিঁয়াজ নিয়ে এসে বাকিটা পেঁপে ও মিষ্টি কুমড়া দিয়ে চাহিদা মেটাচ্ছে। পেপে দিয়ে সালাদের চাহিদা মেটানোর চেষ্টা হচ্ছে। পিয়াজের মূল্য বৃদ্ধির আগে এক কেজি পেঁপের দাম ছিল ১০ টাকা, বর্তমানে তা বিক্রি হচ্ছে ২০ টাকা। এক কেজি মিষ্টি কুমড়ার দাম ছিল ১৫ টাকা, বর্তমানে ৩০টাকায় বিক্রি হচ্ছে। বানিজ্যমন্ত্রী টিপু মুন্শি এমপি রংপুরে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে বলেছেন পিয়াজের দাম আপাতত কমার সম্ভাবনা নেই বলেছেন। বর্তমানে পিঁয়াজের দাম সাধারন মানুষের ক্রয় ক্ষমতার বাইরে চলেগেছে।