বিএনপি দুই সিটি নির্বাচনের পরিবেশ বিনষ্ট করার অপচেষ্টায় লিপ্ত : তথ্যমন্ত্রী

প্রকাশিত

এওয়ান নিউজ: তথ্যমন্ত্রী ও আওয়াামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, বিএনপি ঢাকার দুই সিটির নির্বাচনের পরিবেশ বিনষ্ট করার জন্য একের পর এক ষড়যন্ত্র ও অরাজকতা সৃষ্টির অপচেষ্টায় লিপ্ত রয়েছে। তিনি বলেন,“ অপরাজনীতির সাথে বিএনপি জড়িত। তারা অতীতের মতো নির্বাচনকে কেন্দ্র করে জ্বালাও পোড়াও ও সংঘেের্ষর রাজনীতি সৃষ্টি করার পায়তারায় লিপ্ত রয়েছে।”

হাছান মাহমুদ আজ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন উপলক্ষে চলচ্চিত্র তারকা -পরিচালক -প্রযোজক- কলাকুশলীদের আনন্দ র‌্যালীর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন।

ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি করপোরেশন নিবর্াাচন সুষ্ঠু হবে আশা করে তথ্যমন্ত্রী বলেন, জাতীয় নির্বাচনসহ দেশের কোন নির্বাচনই সরকারের অধীনে হয় না । নির্বাচন কমিশনের অধীনে নির্বাচন হয়ে থাকে। এক্ষেত্রে সরকার নির্বাচন কমিশনকে বিভিন্ন ধরনের সহযোগিতা করে থাকে।

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘আজকে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন পূরণের দেশ অনেক দূর এগিয়ে গেছে। আমাদের উদ্দেশ্য ২০৪১ সাল নাগাদ রাষ্ট্রকে একটি উন্নত দেশে পরিণত করা। একইসঙ্গে আমাদের লক্ষ্য একটি উন্নত জাতি গঠন করা। শুধু উন্নত রাষ্ট্র গঠন করলে হবে না, উল্লেখ করে তিনি বলেন,“আমরা উন্নত রাষ্ট্র গঠন করার পাশাপাশি একটি মানবিক রাষ্ট্র গঠন করতে চাই। আমরা অন্যদের অনুকরণে উন্নত রাষ্ট্র হতে চাই না।”

তথ্যমন্ত্রী বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বাংলাদেশকে জাপান ও মালয়েশিয়ার মতো একটি উন্নত রাষ্ট্র রূপান্তরিত করতে চেয়েছিলেন। আমরা তার দেখানো পথেই হাঁটছি। আশা করছি ২০৪০ সালের আগেই বাংলাদেশকে আমরা পৃথিবীর মধ্যে এগিয়ে নিতে পারবো।

বঙ্গবন্ধুর হাত ধরে বাংলাদেশের চলচিচত্র জগতের যাত্রা শুরু হয়েছিল উল্লেখ করে তথ্যমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ চলচিচত্র উন্নয়ন কর্পোরশনের বিভিন্ন সেক্টরের উন্নয়নের লক্ষে ৩২৭ কোটি টাকা বরাদ্ব করা হয়েছে। এছাড়া মুজিববর্ষ পালনের লক্ষে বিভিন্ন কর্মসূচি গ্রহন করা হয়েছে। রাজধানীর তেঁজগাওস্থ বাংলাদেশ চলচিচত্র উন্নয়ন কর্পোরেশন প্রাঙ্গণে চলচ্চিত্র লীগের উদ্যোগে আনন্দ র‌্যালী বের করা হয়। তথ্যমন্ত্রী ও আওয়াামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ র‌্যালীতে নেতৃত্ব দেন।

এসময় অন্যান্যের মধ্যে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির সভাপতি মুসফিকুর রহমান গুলজার, সাধারণ সম্পাদক বদরুল আলম খোকন, চলচ্চিত্র লীগের সভাপতি এস, এ খালেক, সাধারণ সম্পাদক শাহ আলম কিরন, অভিনেতা মো. আলমগীর ও অভিনেত্রী মৌসুমি উপস্থিত ছিলেন।