ভোলায় করোনা সন্দেহে ৯ টি ঘর ‘লকডাউন’

প্রকাশিত

ভোলা প্রতিনিধি: করোনাভাইরাস(কোভিড-১৯) সংক্রমণ মোকাবিলায় ভোলার লালমোহন উপজেলায় একটি বাড়ির ৯ টি ঘর লকডাউন করা হয়েছে। ঢাকার নারায়ণগঞ্জে করোনাভাইরাসে মৃত্য ব্যক্তির বাড়ি ’লকডাউন’ থেকে এক যুবক পালিয়ে আসার পর নিজ গ্রামের বাড়ি ‘লকডাউন’ করা হয়। ওই যুবকের করোনা সংক্রমণ থাকতে পারে সন্দেহে মঙ্গলবার (৭ এপ্রিল) দুপুরে উপজেলা প্রশাসন বাড়ি লকডাউন করে দেয়। পালিয়ে আসা যুবককে আলাদা ঘরে রাখার পাশাপাশি পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত পৌর ৯ নম্বর ওয়ার্ডের কালাগাজী বাড়িটির ৯ টি ঘর লকডাউনে রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

এ তথ্য নিশ্চিত করে লালমোহন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) হাবিবুল হাসান রুমি বলেন, ঢাকার নারায়ণগঞ্জ থেকে পালিয়ে আসা যুবকের নমুনা সংগ্রহের জন্য উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগকে বলা হয়েছে। যতদিন পর্যন্ত ওই যুবককে চিকিৎসকরা নিরাপদ মনে না করবেন, ততদিন পর্যন্ত পুরো বাড়ি লকডাউনে থাকবে। এ জন্য সেখানে দু’জন গ্রাম পুলিশকে সার্বক্ষণিক মোতায়েন করা হয়েছে।

তিনি আরো জানান, সকালে নারায়ণগঞ্জ থেকে এসে ওই যুবক নিজ বাড়িতে আত্মগোপনে ছিলো, তাকে খুঁজে বের করে লকডাউন করা হয়। এদিকে করোনা সন্দেহে বাড়ি লকডাউনের খবরে উপজেলার ওই এলাকাটিতে নতুন করে আতঙ্ক সৃষ্টি হয়েছে।