বিভাগ - সারাদেশ

যশোরে বিকাশ প্রতারকের খপ্পড়ে পড়ে ২৫ হাজার টাকা খোয়া

প্রকাশিত

বেনাপোল প্রতিনিধিঃ বিকাশ প্রতারকের খপ্পড়ে পড়ে ২৫ হাজার টাকা খুইয়েছেন অসীম দত্ত নামে এক ব্যক্তি। তিনি যশোর সদর উপজেলার মুনসেফপুর দত্তপাড়ার মলয় দত্তের ছেলে। অসিম দত্তের ভাই পলাশ দত্ত অভিযোগ করেছেন, তিনি একজন পান ব্যবসায়ী। এলাকা থেকে পান কিনে ঢাকায় পাঠান। আর এই ব্যবসার টাকা লেনদেন করেন বিকাশের মাধ্যমে। কিন্তু তার কোন বিকাশ নম্বর নেই তার ভাই অসীমের বিকাশ নম্বরে তিনি লেনদেন করেন। গত ২৫ নভেম্বর দুপুরে পানের দুই ক্রেতা ৬০ হাজার টাকা অসীমের বিকাশ নাম্বারে পাঠান। এরপর ওই নম্বার থেকে ৩৫ হাজার টাকা তোলা হয়। অবশিষ্ট ২৪ হাজার ৮শ’ টাকা উক্ত বিকাশ নাম্বারে থাকে। ২৬ নভেম্বর সকাল ১০ টার দিকে একটি নাম্বার থেকে অসীমের মোবাইল নাম্বারে ফোন করে কলদাতা নিজেকে বিকাশ অফিসের লোক পরিচয় দেয়। বলা হয় তার বিকাশের পিন নম্বরে সমস্যা হয়েছে, পিন নম্বর না বললে চিরতরে তার বিকাশ নম্বর বন্ধ হয়ে যাবে। তিনি সরল বিশ্বাসের পিন নম্বরটি দিয়ে দেন। পরে বেলা ১১ টার দিকে দেখেন বিকাশে থাকা নগদ ২৪ হাজার ৮শ’ টাকা নাই। পরে ওই নম্বরে ফোন করলে বন্ধ পান। প্রতারণ চক্র বিকাশের পিন নাম্বার কৌশলে জেনে দ্রুত বিকাশ থেকে টাকা উত্তোলন করে নিয়ে মোবাইল বন্ধ করে দিয়েছে। এই ঘটনায় তিনি যশোর কোতোয়ালি থানায় একটি অভিযোগ দিয়েছেন।