বিভাগ - সারাদেশ

সিলেট জেলা সিএনজি চালিক অটোরিক্সা শ্রমিক ইউনিয়নের মানববন্ধন

প্রকাশিত

সিলেট প্রতিবেদক: সড়ক পরিবহন আইন ২০১৮ এর শ্রমিক সার্থবিরোধী ও বৈষম্যমূলক ধারাগুলি সংশোধনের দাবীতে সিলেট জেলা সিএনজি চালিক অটোরিক্সা শ্রমিক ইউনিয়ন রেজি নং-চট্ট ৭০৭ এর কার্যকরী কমিটির উদ্যোগে এক মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। ১৮ নভেম্বর সোমবার সকাল ১১টায় নগরীর কোর্ট পয়েন্টে এই মানববন্ধন হয়।

সংগঠনের সভাপতি জাকারিয়া আহমেদের সভাপতিত্বে মুক্তিযোদ্ধা উপ-পরিষদের সহ- সভাপতি আব্দুল হামিদের পরিচালনায় মানববন্ধনে উপস্থিত ও বক্তব্য রাখেন সিলেট জেলা সি.এন.জি চালিত অটোরিক্সা শ্রমিক ইউনিয়ন রেজিঃ নংচট্ট-৭০৭ এর জেলা কার্যকরি কমিটির সাধারণ সম্পাদক মো. আজাদ মিয়া, সহ-সভাপতি আবুল হোসেন খাঁন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহাব উদ্দিন, সাংগঠনিক সম্পাদক ইকবাল আহমদ, কল্যাণ সম্পাদক আব্দুল মন্নান, অর্থ সম্পাদক মামুুনুর রশিদ মামুন, সদস্য রফিকুল ইসলাম, আলতাফ হোসেন চৌধুরী, এম. বরকত আলী, রাজা আহমদ রাজা, লিটন আহমদ, আলতাফ হোসেন চৌধুরী, সুজন মিয়া, এপল আহমদ, মুক্তিযোদ্ধা উপ-পরিষদের সম্পাদক শিবলী আহমদ, হুমায়ূন রশিদ চত্ত্বর উপ-পরিষদের সভাপতি মানিক মিয়া, সম্পাদক মিলন আহমদ, প্রমুখ। এছাড়াও বিভিন্ন উপ-পরিষদের সভাপতি সম্পাদক ও সাধারণ শ্রমিকরা উপস্থিত ছিলেন।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন সিলেটে দুর্নীতির শীর্ষে এখন বি.আর.টি.এ। বর্তমানে বি.আর.টি.এ এর অফিসে পরিবহণ শ্রমিকদের হয়রানির শেষ নেই। এ অবস্থায় কী করে শ্রমিকরা তাদের ড্রাইভিং লাইন্সেস বা অন্যান কাগজ পত্র পাবে। এদিকে সরকারের সুদৃষ্ঠি একন্তাকাম্য এবং অনতিবিলম্বে বিষয়টির সমাধান দেওয়ার জন্য সিলেটের সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের প্রতি উদারত আহবান জানান নেতৃবৃন্দ। সড়ক পরিবহন আইন ২০১৮ কিছু ধারা অপপ্রয়োগের মাধ্যমে সাধারণ চালকরা পুলিশি হয়রানির শিকার হওয়ার আশংকা আরো বেড়ে গেছে। ধারাগুলি সংশোধনকল্পে যুগপোযোগি ও বাস্তব সম্মত সংশোধনের প্রস্তাব গ্রহণ করার জন্য সরকারের প্রতি সিলেট জেলা সি.এন.জি চালিত অটোরিক্সার ৪০ হাজার শ্রমিকের পক্ষ থেকে জোর দাবি জানাচ্ছি। আইন সংশোধনের পূর্বপর্যন্ত পুলিশ প্রশাসন কতৃক সাধারণ শ্রমিকগণকে সড়ক পরিবহণ আইনের নামে হয়রানি না করার জন্য এবং আইনের অপপ্রয়োগ না করার জন্য আহ্বান জানান নেতৃবৃন্দ। নেতৃবৃন্দ আরো বলেন, পরিবহন শ্রমিকরা গাড়ির চাকা ঘুড়িয়ে স্বচল রেখেছে এ দেশকে। তাই তাদের প্রতি সহানুভূতিশীল আচরণ করে তাদের পাশে থাকুন। সড়ক পরিবহণ আইন ২০১৮ নামে পুলিশ প্রশাসন কর্তৃক কোনো প্রকার সিএনজি চালিত অটোরিক্সা শ্রমিকদের হয়রানি না করার প্রতি আহ্বান জানান। অন্যাথায় যেখানেই হয়রানির শিকার হবে শ্রমিকরা সেখান থেকেই গাড়ির চাকা বন্ধ হয়ে যাবে। বিজ্ঞপ্তি